মাথার চুলে দু’টি ঘূর্ণি থাকা শুভ নাকি অশুভ? জ্যোতিষে এর অর্থ কী জানেন? কেমন হয়ে থাকে এই ধরনের মানুষের আচার-ব্যবহার!

অনেক ক্ষেত্রেই সদ্যোজাত শিশু জন্মের পর দেখা যায় তাদের মাথায় দুটি ঘূর্ণি.. বহু মানুষ মনে করেন এতে নাকি সংসারে অশান্তি বৃদ্ধি পায় এবং নানান রকমের সমস্যা আসে! এই কথাগুলো কি সত্যি নাকি শুধুই ভ্রান্ত ধারণা?

0
253
মাথার চুলে দু'টি ঘূর্ণি থাকা শুভ নাকি অশুভ? জ্যোতিষে এর অর্থ কী জানেন? কেমন হয়ে থাকে এই ধরনের মানুষের আচার-ব্যবহার!
মাথার চুলে দু'টি ঘূর্ণি থাকা শুভ নাকি অশুভ? জ্যোতিষে এর অর্থ কী জানেন? কেমন হয়ে থাকে এই ধরনের মানুষের আচার-ব্যবহার!

অনেক ক্ষেত্রেই বাচ্চা জন্মের পর দেখা যায় যে তাদের মাথায় দুটি ঘূর্ণি রয়েছে। যারা এই বিষয়টি বোঝেন না তাদের উদ্দেশ্যে প্রথমেই বলে রাখি,অনেকের মাথায় চুলের গোছ এমন হয় যে উপর থেকে দেখলে মনে হয়, মাথার দু’পাশে দু’টি ঘূর্ণি তৈরি হয়েছে। চুলগুলি গোল হয়ে পাকিয়ে থাকে সেখানে। অনেকেই মনে করেন যে এই ধরনের ঘটনার ফলে সেই শিশুটির হয়তো দু’বার বিয়ে হয় অথবা সংসারে নানান রকম অশান্তি আসে। তবে এই কথাটি কি আদৌ সত্যি নাকি শুধুই ভ্রান্ত ধারণা! আজকের এই বিশেষ প্রতিবেদনে আমরা জ্যোতিষ শাস্ত্রের বিভিন্ন দিক বিশ্লেষণ করে এই ধারণাটির সত্যতা সম্পর্কে আলোচনা করতে চলেছি। যদি আপনার বাড়িতেও এমন শিশু থেকে থাকে তাহলে প্রতিবেদনটি অবশ্যই শেষ পর্যন্ত মনোযোগ সহকারে পড়ে নিন।

জেনে রাখুন এই ঘটনার একটি বৈজ্ঞানিক ভিত্তি রয়েছে।ন্যাশনাল হিউম্যান জিনোম রিসার্চ ইনস্টিটিউট (NHGRI)-র বক্তব্য অনুযায়ী, চুলে এই ধরনের ঘূর্ণি তৈরিতে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা গ্রহণ করে জিন। বংশ পরম্পরায় মানুষের মাথায় দু’টি বা একটি করে ঘূর্ণি তৈরি হয়। তবে মাথায় দুটি বা তিনটি ঘূর্ণি থাকা কোন রকম ক্ষতিকারক ব্যাপার নয়। তিল বা কোন জন্ম দাগের মতন এটাও একটা সাধারন বৈশিষ্ট্য। এবার আসি জ্যোতিষ শাস্ত্রের কথায়। যারা ভাবেন মাথায় দুটো ঘূর্ণি থাকা খুবই ক্ষতিকারক তারা জেনে রাখুন যে এটি একদিক থেকে খুবই শুভ ঘটনা।

বিশিষ্ট জ্যোতিষবিদরা জানিয়েছেন যে,যাঁদের দু’টি ঘূর্ণি আছে, তাঁরা সৌভাগ্যের অধিকারী। সোজাসুজি কথা বলা, ধৈর্যশীল, সবার সঙ্গে মিলেমিশে থাকা এবং পরোপকার করার স্বভাব রয়েছে।। সর্বদাই যেকোনো কাজ করার আগে ভালোভাবে ভেবেচিন্তে পা বাড়ান এই সমস্ত মানুষ। তাই তাদের জীবনে বিপদের থেকে বেশি সাফল্যের সংখ্যা এগিয়ে রয়েছে। তবে হ্যাঁ এই ধরনের দুটো ঘূর্ণি থাকলে দুইবার বিবাহের কথা বলা হয় যা অনেক জ্যোতিষী স্বীকার করে নিয়েছেন। এমনকি এতে বিবাহ বিচ্ছেদের সম্ভাবনাও থাকে অনেক সময়। যদিও এটি প্রমাণিত সত্য নয় বলেই জানা যাচ্ছে। তবে শুধুমাত্র ঘূর্ণি নয়, মাথার চুল থেকে জ্যোতিষ শাস্ত্র অনুযায়ী অনেক কিছুই জানা যায়।

দেখে নেওয়া যাক মাথার চুল নিয়ে এই শাস্ত্র কী বলছে-

  1. যাদের মাথার চুল কালো ও ঘন তাদের স্বাস্থ্য খুব ভাল হয় এবং তারা পরিশ্রমী হয়। সুযোগ পেলে তারা জীবনে প্রচুর অর্থ উপার্জন করতে পারে।
  2. যাদের মাথার চুল পাতলা ও অল্প হয়, তাদের স্বাস্থ্য খুব দৃঢ় হয় না। তারা একটু কম বয়স থেকেই নানা রোগে ভুগে থাকে। অনেক কঠিন ব্যাধিও তাদের হওয়া সম্ভব।
  3. যাদের চুল রেশমের মতো মসৃণ ও বেশ মোলায়েম হয়, তাদের ভাগ্য খুব ভাল হয়ে থাকে। এরা বেশ সৌন্দর্যপ্রিয় ও সর্বদা হাসিখুশী স্বভাবের হয়।
  4. যাদের মাথার চুল একেবারেই প্রায় নেই বা মাথায় টাক তারা খুব বিদ্বান, বুদ্ধিমান, সন্দেহবাতিক, কৃপণ স্বভাব এবং আত্মকেন্দ্রিক হয়ে থাকে।
  5. যাদের কেশ খসখসে ও রুক্ষ ধরনের হয়, তারা নানারকম রোগব্যাধি ও নানা ঝামেলার জন্য জীবনে কষ্ট পেয়ে থাকে।
  6. অপরিণত বয়সে চুল পেকে গেলে, সে জাতকের মাথার কোনও রকম অসুস্থতা, পেটের কোনও সাংঘাতিক পীড়া ইত্যাদি হতে পারে।

Read More: Bollywood Update : তবে কি ভাঙ্গা সম্পর্ক ফের জোড়া লাগার পথে? আবারো এক হতে চলেছেন নাগা-সামান্থা!