হাতে নগদের অভাব? এই দুর্দান্ত অফারের সুযোগে মাত্র 30 হাজারেই বাড়ি আনুন স্পোর্টস বাইক R15, জানুন কিভাবে?

বাড়িতে স্পোর্টস বাইক আনতে চান অথচ হাতে নগদ টাকার অভাব? আজকের এই বিশেষ প্রতিবেদনটি নিমেষেই হতে পারে আপনার সমস্যার সমাধান..স্পোর্টস বাইকের মধ্যে দারুণ একটি বিকল্প R15। যেমন লুক তেমনই গতি ও পারফরম্যান্স। জেনে নিন এটি সম্পর্কে।

0
196
হাতে নগদের অভাব? এই দুর্দান্ত অফারের সুযোগে মাত্র 30 হাজারেই বাড়ি আনুন স্পোর্টস বাইক R15, জানুন কিভাবে?
হাতে নগদের অভাব? এই দুর্দান্ত অফারের সুযোগে মাত্র 30 হাজারেই বাড়ি আনুন স্পোর্টস বাইক R15, জানুন কিভাবে?

বর্তমানের তরুণ প্রজন্মের কাছে স্পোর্টস বাইকের চাহিদা ক্রমশই দিন প্রতিদিন বেড়ে চলেছে। তবে এই প্রিমিয়াম মোটরবাইকগুলোর সব থেকে বড় সমস্যা হচ্ছে তাদের দাম। অনেকেই চড়া দামের কারণে এই বাইকগুলো কিনতে গিয়েও অসুবিধার মুখোমুখি পড়েন। কিন্তু আজকের এই বিশেষ প্রতিবেদনটি ফলো করলে কিন্তু এবার থেকে আর আপনার সমস্যা হবে না। স্পোর্টস বাইকের তালিকায় Yamaha R15-এর প্রতি বাইক-প্রেমীদের এক আলাদাই ভালোবাসা ও অনুভূতি কাজ করে। বিশেষত এর হাই-পারফরম্যান্স, দারুণ ডিজাইন ও চেহারার জন্য পরিচিত ইয়ামাহা। তার একটি নমুনা R15। তবে দুঃখের ব্যাপার এই যে এই বাইকটির দাম প্রায় দুই লক্ষ টাকার কাছাকাছি। যা সাধারণ মধ্যবিত্ত মানুষের অনেকটাই ধরাছোঁয়ার বাইরে।

তবে একটি বিশেষ অফারে কিন্তু খুবই কম টাকায় আপনারা এটা বাড়িতে নিয়ে আসতে পারবেন। জানিয়ে রাখি,Yamaha R15 এই স্পোর্টস বাইকটির এক্স-শোরুম দাম 1,81,700 টাকা (এক্স-শোরুম)। অন-রোড প্রাইস 2,07,981 টাকা। অর্থাৎ পুরো নগদে কিনতে চাইলে আপনাকে 2.07 লাখ টাকা প্রস্তুত রাখতে হবে। কিন্তু বাইক ফাইন্যান্স প্ল্যান মেনে চললে মাত্র 30,000 টাকাতেই বাড়ি আনতে পারবেন।

এই দুর্দান্ত অফারের সুযোগে মাত্র 30 হাজারেই বাড়ি আনুন স্পোর্টস বাইক R15
এই দুর্দান্ত অফারের সুযোগে মাত্র 30 হাজারেই বাড়ি আনুন স্পোর্টস বাইক R15

সম্পূর্ণ নগদ অর্থ যদি আপনাদের একবারে দিতে সমস্যা থাকে সেক্ষেত্রে 30,000 টাকা প্রস্তুত রাখতে হবে। অনলাইন ইএমআই ক্যালকুলেটরের তথ্য অনুসারে, এই টাকা ডাউন পেমেন্ট হিসাবে জমা দিলে, ব্যাঙ্কের তরফে 1,77,981 টাকা লোন ইস্যু করা হবে। সুদের হার যদি 9.7 শতাংশ রাখেন এবং মেয়াদ 3 বছর, তাহলে মাসিক কিস্তি দিতে হবে 5,415 টাকা। এবার আসুন এই স্পোর্টস বাইকটির ফিচার্স এবং স্পেসিফিকেশন সম্পর্কে একটু বিশদে জেনে নেওয়া যাক।

• Yamaha R15 এ আপনারা পেয়ে যাবেন ট্র্যাকশন কন্ট্রোল, কুইকশিফটার, আপসাইড ডাউন ফ্রন্ট ফর্ক, ডুয়াল চ্যানেল অ্যান্টি লক ব্রেকিং সিস্টেম, দু চাকাতেই ডিস্ক ব্রেক।

• এই স্পোর্টস বাইকটিতে রয়েছে ডিজিটাল স্ক্রিন এবং স্মার্টফোন কানেক্টিভিটি। কল বা এসএমএস এর নোটিফিকেশনও আপনারা এখানে পেতে পারেন।

• ইয়ামাহার এই স্পোর্টস বাইক মেটালিক রেড ছাড়াও ডার্ক নাইট, রেসিং ব্লু এবং ইনটেনসিটি হোয়াইট রংয়ের ভ্যারিয়েন্টে বাজারে পাওয়া যায়।

Read More: Top 7 Bikes : বাইক বা স্কুটার কিনতে আগ্রহী রয়েছেন? উৎসবের মরশুমে কোনটা কিনলে লাভে থাকবেন? জেনে নিন আজকের প্রতিবেদন!